Designed by shamsuddin noman

Skip to Content

কোম্পানীগঞ্জে স্বামী হত্যা মামলার প্রধান আসামী  স্ত্রী রোকসানা গ্রেফতার

কোম্পানীগঞ্জে স্বামী হত্যা মামলার প্রধান আসামী স্ত্রী রোকসানা গ্রেফতার

Closed

প্রতিনিধি :নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে স্বামী হত্যা মামলার প্রধান আসামী জাকিয়া বেগম রোকসানা(৩৩) কে গ্রেফতার করেছে কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ। রবিবার বিকাল ৪ টায় নোয়াখালীর সূবর্ণচর উপজেলার চরজুবলী ইউনিয়নের হানিফ চেয়ারম্যান বাজার সংলগ্ন ২৯ দিঘি এলাকায় আসামীর ফুফুর বাড়ি থেকে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করেছে। পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সংবাদ পেয়ে কোম্পানীগঞ্জ থানার পরিদর্শক(তদন্ত) রবিউল হক ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক(এসআই) সাইফ উদ্দিনের নেতৃত্বে পুলিশ নোয়াখালী জেলার সূবর্ণ চর উপজেলার চরজুবলী ইউনিয়নের হানিফ চেয়ারম্যান বাজার সংলগ্ন ২৯ দিঘি এলাকায় রোকসানার ফুফুর বাড়িতে চরজব্বর থানা পুলিশের সহযোগীতায় অভিযান চালিয়ে রোকসানাকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় তার ছেলে মাহফুজুর রহমান ইমনকে(১৪) জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে আসা হয়। পরবর্তীতে রোকসানার স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দী গ্রহনের পর ইমনকেও গ্রেফতার করা হয়। কোম্পানীগঞ্জ থানায় দায়ের হওয়া মামলা সূত্রে জানা যায়, জাকিয়া বেগম রোকসানার উশৃঙ্খল চলাফেরা ও পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় ও পারিবারিক বিরোধকে কেন্দ্র করে স্বামী আব্দুর রহিম মঞ্জু(৩৪) কে জাকিয়া বেগম রোকসানা তার ভাই জহিরুল ইসলাম মিলন, জসিম উদ্দিন ও জুয়েলের সহযোগীতা ২২ সেপ্টেম্বর গভীর রাতে কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের ফাতেমা মঞ্জিলের ২য় তলার ভাড়া বাসায় পিটিয়ে হত্যা করে। পরবর্তীতে লাশ ফেনী সদর হাসপাতালে নিয়ে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় নিহত আব্দুর রহিম মঞ্জুর(৩৪) ভগ্নিপতি আবু তাহের মিয়াধন বাদী হয়ে ৫ জনকে আসামী করে কোম্পানীগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে(মামলা নং-০৯)। মামলা দায়ের পরপরই ২৩ সেপ্টেম্বর শুক্রবার রাতে মামলার ২নং আসামী জাকিয়া বেগম রোকসানার ভাই জহিরুল ইসলাম মিলন(২৮) কে নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার ধানসিঁড়ি ইউনিয়নস্থ তার শ^শুর বাড়ি থেকে পুলিশ গ্রেফতার করে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক(এসআই) সাইফ উদ্দিন জানান, গ্রেফতারকৃত আসামী জাকিয়া বেগম রোকসানার ১৬৪ ধারায় গৃহীত জবানবন্দীতে সে হত্যা করার কথা স্বীকার করেছে এবং এ ঘটনায় তার ৩ ভাই ও ছেলে মাহফুজুর রহমান ইমন(১৪) ও জড়িত ছিল বলে স্বীকার করেছে। আসামী রোকসানার স্বীকারোক্তির পর তার ছেলে মাহফুজুর রহমান ইমনকে(১৪) গ্রেফতার করা হয়েছে বলে এসআই সাইফ উদ্দিন জানান।

Previous
Next