Designed by shamsuddin noman

Skip to Content

সিটি কর্পোরেশনে কিছু হয় না এই ধারণাকে আমরা বদলে দিতে চাই আনিসুল হক

সিটি কর্পোরেশনে কিছু হয় না এই ধারণাকে আমরা বদলে দিতে চাই আনিসুল হক

Closed

index
বিশেষ প্রতিবেদক : আনিসুল হক, একজন সফল মানুষ। সফল ব্যবসায়ী। সফল এই মানুষটি ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের এর প্রার্থী তিনি। এরই মধ্যে আনুষ্ঠানিকভাবে নির্বাচনের প্রচারাভিযান শুরু করেছেন। নির্বাচন প্রস্তুতি, নগরবাসীর নাগরিক অধিকার সংরক্ষণ নিয়ে তার পকিল্পনার, দুর্নীতি প্রসঙ্গ, ভেতর বাহিরের প্রায় সব প্রসঙ্গেই কথা বলছেন।
প্রশ্ন : ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন করছেন। বিজয়ী হলে সিটি কর্পোরেশন নিয়ে আপনার পদক্ষেপ কি হবে?
আনিসুল হক : সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন আমি করছি। এটি আমার একটি সুযোগ। এই সুযোগটি আমি কাজে লাগাতে চাই। সিটি কর্পোরেশনে কিছু হয় না, কোথাও কিছু হচ্ছে না এই ধারণাকে আমরা বদলে দিতে চাই। সিটি কর্পোরেশন নিয়ে আমার স্বপ্ন রয়েছে। আর স্বপ্ন দেখলে স্বপ্ন পূরণ হবেই। তবে শর্টকাটে কোনো কিছু হয় না। আপনি মন থেকেই চাইলে, যেকোনো চাওয়া পূরণ হবেই। তার জন্য আপনাকে সৎ হতে হবে। সচেতন আপনারা থাকবেন। ভুল ধরিয়ে দেবেন। বাকি কাজ আমার। আমি চেষ্টা করব ভুল শুধরে নতুন কিছু করার। চমৎকার কিছু করার।
প্রশ্ন : আপনি নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেছেন। পুরোনো, অভিজ্ঞ কেউ নয়, সবই তরুণ। কেন?
আনিসুল হক : এ দেশে অনেক সমস্যা রয়েছে। সংকট রয়েছে। এসব সমস্যা ও সংকটের সমাধান হয়তো খুব তাড়াতাড়ি হবে না, তবে মানুষ চাইলে সব সম্ভব। সংকটের, সমস্যার মীমাংসাও করা যাবে। আমি তরুণদের নিয়ে যাত্রা শুরু করেছি, কারণ তরুণেরাই আগামীর ভবিষৎ। তারা এই বাংলাদেশ চালাবে। তবে সমাজের অন্যান্য নাগরিকদের সঙ্গেও আমরা খুব শিগগিরই আলোচনা শুরু করব। রাজনীতিবিদ, অর্থনীতিবিদ, প্রযুক্তিবিদ, সাধারণ মানুষসহ সব শ্রেণীপেশার মানুষের সঙ্গেই কথা বলব। পরামর্শ নিব।
প্রশ্ন : শহরের নাগরিকদের কতটা কাছাকাছি পৌঁছাতে পারবেন বলে মনে হয়? ঢাকার নাগরিকদের নিয়ে আপনার ভাবনা কি?
আনিসুল হক : আমি মেয়র নির্বাচিত হলে নাগরিকদের নিয়েই হবে আমার ৫ বছরের কর্মযজ্ঞ। তাদের জন্যই কাজ করতে চাই। কথা নয়, কাজেই এর প্রমাণ দিতে চাই।
প্রশ্ন : নাগরিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে আপনার পরিকল্পনা?
আনিসুল হক : ঢাকা একটি অনেক বড় শহর। এখানে অনেক মানুষ বসবাস করে। তাদের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়েও আমরা দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা করছি। তবে বেশি কথা না বলে এটুকু অন্তত বলতে পারি, ঢাকা শহরের অলিগলি পর্যন্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে। নিরাপত্তাহীনতায় কেউ থাকবে না। কাজটা জানি কঠিন হবে, তবে আমরা আত্মবিশ্বাসী।
প্রশ্ন : ঢাকার ফুটপাতগুলো প্রায় সবগুলোই হকারদের দখলে। ফুটপাত দখলমুক্ত করার কোনো পরিকল্পনা আছে আপনার?
আনিসুল হক : ফুটপাত একটি সেনসেটিভ ইস্যু। কেননা, ফুটপাতে অনেক সাধারণ মানুষ ব্যবসা করে তার জীবিকা নির্বাহ করেন। আবার নাগরিকদের চলাফেরা করাও কঠিন হয়। আমরা এ বিষয়টি নিয়ে ভাবছি। যারা এই বিষয়ে গবেষণা করেন, তাদের আমরা বসব। আলোচনা করব। এ নিয়ে আমাদের একটি গবেষণা টিম কাজ করছে। আশা করছি এই গবেষণা টিম একটা উইন উইন পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়, এরকম কিছু একটা বের করবে।
প্রশ্ন : মেয়র হলে কি নতুন এন্টারপ্রেনিয়রদের জন্য কোনো উদ্যোগ নিবেন?
আনিসুল হক : নতুন এন্টারপ্রেনিয়রদের নিয়ে আমার পরিকল্পনা রয়েছে। আমি ১০-২০ হাজার স্টুডেন্টকে চাকরির ব্যবস্থা করব। এর আগেও আমি অনেক ছেলে-মেয়েকে চাকরি, ব্যবসার করতে সহযোগিতা করেছি। আমার অভিজ্ঞতা রয়েছে, আমি পারব।
প্রশ্ন : নগর প্রশাসনকে দুর্নীতিমুক্ত করতে আপনার উদ্যোগ কী হবে?
আনিসুল হক : দুর্নীতির বিষয়ে আমার প্রথম কাজ হবে নিজেকে স্বচ্ছ রাখা। এটা আমার প্রথম কমিটমেন্ট। তারপর নগর ভবনের দুর্নীতি প্রতিরোধে সবার সঙ্গে বসব। কথা বলব। দুর্নীতি আজ যে অবস্থায় আছে, ৫ বছর পর পরিস্থিতির উন্নতি হবে, একথা আমি আপনাদের দিচ্ছি।
প্রশ্ন : নগরবাসীর নিরাপত্তা ব্যবস্থায় আধুনিক, প্রযুক্তি নির্ভর কোনো ব্যবস্থা আপনার পরিকল্পনায় আছে?
আনিসুল হক : হ্যা, নাগরিকদের নিরাপত্তা নিশ্চিতে প্রযুক্তি নির্ভর আধুনিক ব্যবস্থা নেওয়ার পরিকল্পনা আমাদের রয়েছে। যেই পদক্ষেপটি আমরা ভেবেছি প্রথমে, তাহলো একটি হটলাইন থাকবে সবার জন্য উš§ুক্ত। হটলাইনে তিনটি বাটন লাইন থাকবে। একটি হলোÑ বলতে চাই, দ্বিতীয় হলো, দেখাতে চাই ও তথ্য সরবরাহ করতে পারবেন নাগরিকেরা। তবে নগরের নিরাপত্তা বিধানের দায়িত্ব সরকারের সংশ্লিষ্ট বিভাগের। প্রয়োজনে আমরা তাদের সহযোগিতা নেব।
প্রশ্ন : সিটি কর্পোরেশনের বর্জ্য অপসারনে আপনার প্রশাসনের উদ্যোগ কী হবে?
আনিসুল হক : সিটি কর্পোরেশনের বর্জ্য অপসারনের যথাপোযুক্ত ব্যবস্থা আমরা নেব। কেননা, যেখানে সেখানে বর্জ্য থাকার ফলে শহরের নাগরিকদের নানা সমস্যায় পড়তে তা আমরা জানি। নাগরিকদের এই সমস্যা থেকে মুক্ত করতে কাজ করব, এটুকু বলতে পারি।
প্রশ্ন : আপনি আওয়ামী লীগের মেয়র হবেন, নাকি সবার?
আনিসুল হক : আমি এর আগেও বড় বড় দায়িত্ব পালন করেছি। সেখানে দলমত নির্বিশেষে আমার সঙ্গে সবাই ছিলেন। আমি আওয়ামী লীগের সমর্থিত প্রার্থী হলেও মেয়র নির্বাচিত হলে সবাইকে নিয়েই আমি কাজ করব। কেননা, মেয়র সবার। আমি সবার একজন হবো। আমাদেরসময়.কম এর সৌজন্যে।

Previous
Next