খেলাধুলা

যাদের হার্ট দুর্বল তারা দয়া করে পাঞ্জাবের খেলা দেখবেন না : প্রীতি

এমন উত্তেজনার ম্যাচ আইপিএল আগে দেখেনি! অনেকের মতে, বিশ্বকাপের উত্তেজনাকে হার মানিয়েছে রোববার অনুষ্ঠিত কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব বনাম মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের ম্যাচ।

এদিন নজিরবিহীন ইতিহাসের সাক্ষী হয় দুবাই স্টেডিয়াম। ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে। তাতেও জয়-পরাজয় নিশ্চিত না হলে আইপিএলের নতুন নিয়মানুযায়ী ম্যাচ গড়ায় দ্বিতীয় সুপার ওভারে। অতঃপর শেষ হাসি ফুটে পাঞ্জাবের মুখে।

একটি সুপার ওভারের ম্যাচ মানেই টানটান উত্তেজনা আর সমর্থকদের শ্বাস বন্ধ হয়ে যাওয়া উপক্রম। সেখানে দুবার সুপার ওভার! রুদ্ধশ্বাসের চরম পর্যায়ে তো অবশ্যই।
এমন উত্তেজনাপূর্ণ ম্যাচে নাকি দুই দলের সমর্থকদের হৃৎযন্ত্র বন্ধ হয়ে যাওয়ার মতো অবস্থা হয়েছিল।

রোববার ম্যাচের আগে পাঞ্জাব শেষ ম্যাচ খেলেছিল বিরাট কোহলির রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর বিপক্ষে।

সে ম্যাচে গেইলের আগমনে ঘুড়ে দাঁড়ায় পাঞ্জাব। টানা হারে পয়েন্ট টেবিলের তলানিতে থাকা দল ৮ উইকেটে উড়িয়ে দেয় কোহলির দলকে।

এমনভাবে পাঞ্জাবের ঘুরে দাঁড়ানোর বিষয়ে বিস্মিত ও মুগ্ধ হন ক্রিকেটপ্রেমীরা।

সে ম্যাচের পর ভক্তদের সতর্ক করে টুইটারে প্রীতি জিনতা লেখেন, ‘আশা করি আমাদের দল ক্রিকেটের নামে লোকের হার্ট অ্যাটাকের কারণ হয়ে দাঁড়াবে না। একটা প্রয়োজনীয় সতর্ক বার্তা দিই- পাঞ্জাবের ম্যাচ দুর্বলচিত্তের লোকদের জন্য নয়।’

প্রীতির সেই টুইট যেন ভবিষ্যদ্বাণী ছিল।

নিজেদের পরের ম্যাচেই শ্বাসরুদ্ধকর ডাবল সুপার ওভারে জয় নিশ্চিত করে প্রীতির কিংসরা।

এবারের আইপিএলে তেমন একটা ভালো অবস্থানে নেই প্রীতির দল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। প্রথম ৭ ম্যাচে তার দল মাত্র এক ম্যাচ জিততে পেরেছিল। গত বৃহস্পতিবার রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর বিপক্ষে রোমাঞ্চকর জয় তুলে নিয়ে দলটি প্লে অফ খেলার আশা বাঁচিয়ে রাখে। তবে দ্বিতীয় পর্বের বাকি ম্যাচগুলোতে টানা জয় পেলে সমীকরণটি পাল্টে দিতে পারে লোকেশ রাহুলের দল।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close